মঙ্গলবার, ২৪ মে ২০২২, ১২:৪০ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
ইলিয়াস মোল্লা’কেই পুনরায় চেয়ারম্যান হিসেবে চায় লাউকাঠী ইউনিয়নবাসী শিক্ষার্থীদের ধাওয়া খেয়ে ভোঁ-দৌড় দিলেন সুন্দরগঞ্জ উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা! লালমনিরহাটে পানির নিচে কৃষকের স্বপ্নের ধান! হাতীবান্ধায় ন্যাশনাল ব্যাংকের করোনায় ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারের মাঝে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ ভুট্টাক্ষেতে মিলল স্কুলছাত্রীর মরদেহ তিস্তা বাঁচাও ভাঙ্গন ঠেকাও শীর্ষক তিস্তা কনভেনশন কাজীর কান্ড! কাবিননামা নিতে ৩০ হাজার টাকা দাবি মাদক ব্যবসায়ীদের ছুরিকাঘাতে দুই পুলিশ কর্মকর্তা আহত! লালমনিরহাটে বিএনপির বাইসাইকেল র‍্যালিতে মির্জা ফখরুল লালমনিরহাটে অস্ত্রসহ ৪ জন জনতার হাতে আটক।। পুলিশে সোপর্দ

৪ ব্যাংকের তথ্য চেয়েছে মন্ত্রণালয় : লা মেরিডিয়ানে বিনিয়োগ

নতুন বাংলার সংবাদ
  • প্রকাশের সময় : বৃহস্পতিবার, ২৪ ডিসেম্বর, ২০২০
  • ৪৮ বার দেখা হয়েছে
ছবি: সংগৃহীত

বাংলার সংবাদ ডেস্ক ।। সরকারি কোম্পানির তকমা লাগিয়ে শেয়ারবাজারে তালিকাভুক্ত হতে চাওয়া লা মেরিডিয়ান হোটেলের (বেস্ট হোল্ডিংস লিমিটেড) শেয়ারে সরকারি চার ব্যাংকের বিনিয়োগের তথ্য চেয়েছে অর্থ মন্ত্রণালয়ের আর্থিক প্রতিষ্ঠান বিভাগ।

মঙ্গলবার (২২ ডিসেম্বর) গণমাধ্যমে প্রকাশিত সংবাদ আমলে নিয়ে সরকারি চার ব্যাংক এবং আইসিবির সহযোগী প্রতিষ্ঠান আইসিবি ক্যাপিটাল ম্যানেজমেন্টকে এ নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

অর্থ মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সহকারী সচিব শেখ সিদ্দিকুর রহমান স্বাক্ষরিত চিঠিতে বলা হয়, লা মেরিডিয়ান হোটেলকে সরকারি কোম্পানির তকমা দিয়ে নিয়ন্ত্রক সংস্থা বিএসইসিকে পাশ কাটিয়ে সরাসরি শেয়ারবাজারে তালিকাভুক্তির উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। এ ধরনের সংবাদ মন্ত্রণালয়ের নজরে এসেছে। বিষয়টি খতিয়ে দেখা জরুরি।

এক্ষেত্রে বেস্ট হোল্ডিংসে সোনালী, অগ্রণী, জনতা এবং রূপালী ব্যাংকের বিনিয়োগের ধারাবাহিকতার পরিপূর্ণ ব্যাখ্যা দিতে হবে। বিনিয়োগের ক্ষেত্রে স্ব স্ব ব্যাংকের পর্ষদের কার্যবিবরণী এবং প্রতিটি শেয়ার ৬৫ টাকা দরে কেনার যৌক্তিকতা এবং আর্থিক বিবরণীর পূর্ণচিত্র উল্লেখ করতে হবে বলে চিঠিতে বলা হয়।

বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নর এবং বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের (বিএসইসি) চেয়ারম্যানকেও বিষয়টি অবহিত করা হয়েছে বলে চিঠিতে উল্লেখ করা হয়।

জানা গেছে, লা মেরিডিয়ান হোটেলে প্রায় ১ হাজার ৮০০ কোটি টাকার বিনিয়োগ রয়েছে রাষ্ট্রমালিকানাধীন সোনালী, অগ্রণী, জনতা ও রূপালী ব্যাংকের। এ চার ব্যাংকের মালিকানার অংশের কারণেই কোম্পানিটিকে সরকারি কোম্পানি বলে শেয়ারবাজারে তালিকাভুক্তির অপচেষ্টা করা হয়।

আইন অনুসারে, সরকারি মালিকানাধীন ছাড়া বেসরকারিখাতের কোম্পানিকে সরাসরি তালিকাভুক্তির ক্ষেত্রে বিএসইসির নিষেধাজ্ঞা রয়েছে। সেই নিষেধাজ্ঞার আইনি ফাঁকফোকর ব্যবহার করে কোম্পানিটি শেয়ারবাজারে তালিকাভুক্তির মাধ্যমে প্রায় ৩০০ কোটি টাকা তুলে নিতে চেয়েছিলেন উদ্যোক্তারা।

গত ৮ সেপ্টেম্বর বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নর ও বিএসইসির চেয়ারম্যান বরাবর লেখা অর্থমন্ত্রীর ওই চিঠিকে ঢাল হিসেবে ব্যবহার করে লা মেরিডিয়ান হোটেলকে ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) সরাসরি তালিকাভুক্তি বা ডাইরেক্ট লিস্টিংয়ের উদ্যোগ নেওয়া হয়। ওই চিঠিতে অর্থমন্ত্রী বেসরকারিখাতের কোম্পানির সরাসরি তালিকাভুক্তির ক্ষেত্রে বিএসইসির নিষেধাজ্ঞা–সংক্রান্ত নির্দেশনা শিথিলের কথা বলা হয়েছিল।

আইপিও (প্রাথমিক শেয়ার) আবেদন বাতিলের পর এবার শেয়ারবাজারে সরাসরি তালিকাভুক্তির জন্য অভিনব জালিয়াতির আশ্রয় নিয়েছিল বেস্ট হোল্ডিং লিমিটেড। কারসাজির এই ডিজাইন দুই বছর আগেই করে লা মেরিডিয়ান। এরপর প্রক্রিয়া শুরু করে। ভুয়া ফার্ম দিয়ে নিরীক্ষার মাধ্যমে একটি হোটেলের সম্পদ মূল্য দেখানো হয় ৭ হাজার ৭২০ কোটি টাকা। আর এই ভুয়া আর্থিক রিপোর্টের কারণে এই কোম্পানির আইপিও (প্রাথমিক শেয়ার) আবেদন বাতিল করে নিয়ন্ত্রক সংস্থা বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি)।

একটি বেসরকারি প্রতিষ্ঠানকে সরকারি দেখিয়ে সরাসরি তালিকাভুক্তির সব আয়োজন চূড়ান্ত করেছিল। এক্ষেত্রে কোনো ধরনের চুক্তি ছাড়াই সরকারি বিনিয়োগ প্রতিষ্ঠান আইসিবিকে এই প্রক্রিয়ার ইস্যু ম্যানেজার হিসেবে দেখানো হয়েছে। এক্ষেত্রে অর্থমন্ত্রীর কাছ থেকে চিঠি এনে বিএসইসি এবং স্টক এক্সচেঞ্জে দেয়া হয়েছে।

অবকাঠামো খাতের কোম্পানিকে পরবর্তী নির্দেশ না দেওয়া পর্যন্ত শেয়ারবাজারে ডাইরেক্ট লিস্টিংয়ের নির্দেশনাটি স্থাগিত করেছে অর্থমন্ত্রণালয়।

বৃহস্পতিবার (১৭ ডিসেম্বর) বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নর ও বিএসইসি’র চেয়ারম্যান বরাবর এ সংক্রান্ত চিঠি পাঠিয়েছেন অর্থমন্ত্রীর একান্ত সচিব ড. মো: ফেরদৌস আলম।

এর আগে গত ৮ সেপ্টেম্বর অর্থমন্ত্রী অবকাঠামো প্রকল্প অর্থায়নে সরকারি ও বেসরকারি তফসিলী ব্যাংকের গৃহিত ইক্যুইটি এক্সপোজারে তারল্য সৃষ্টি ও ঝুঁকি কমানোর জন্য এ সংশ্লিষ্ট কোম্পানিকে ডাইরেক্ট লিস্টিংয়ের জন্য করণীয় পদক্ষেপ নিতে বলেছিলেন।

অর্থমন্ত্রীর ওই চিঠির ভিত্তিতে বেসরকারি লা মেরিডিয়ানকে ডাইরেক্ট লিস্টিং করানোর পদক্ষেপ নেওয়া হয়। তবে বিদ্যমান আইনের সঙ্গে সেটা ছিল সাংঘর্ষিক।

অর্থমন্ত্রীর ওই চিঠির ভিত্তিতে বেসরকারি বেষ্ট হোল্ডিংস লিমিটেডকে (লা মেরিডিয়ান হোটেল) ডাইরেক্ট লিস্টিং করানোর পদক্ষেপ নেওয়া হয়। তবে বিদ্যমান আইনের সঙ্গে সেটা ছিল সাংঘর্ষিক।

লা মেরিডিয়ানে সরকারি ৪ ব্যাংকের মালিকানা রয়েছে ২৯.৫৮ শতাংশ। এরমধ্যে সোনালি ব্যাংকের ৮.৮৩%, জনতা ব্যাংকের ৮.৮৩%, অগ্রণী ব্যাংকের ৬.৬২% ও রূপালি ব্যাংকের ৫.৩০%। বেসরকারি খাতে সরকারি ব্যাংকের এ জাতীয় অর্থ ফেরত নেওয়ার জন্যই অর্থমন্ত্রী ওই চিঠি দিয়েছিলেন।

তবে আজ আরেক চিঠির মাধ্যমে পরবর্তী নির্দেশনা না দেওয়া পর্যন্ত ৮ সেপ্টেম্বরের চিঠির বিষয়ে কার্যক্রম গ্রহণ না করার জন্য অনুরোধ করা হয়েছে।

ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) পর্ষদ সভায় বৃহস্পতিবার তাদের ওই আবেদন নিয়ে আলোচনা হওয়ারও কথা থাকলেও সরাসরি তালিকাভুক্তির ক্ষেত্রে বিধিনিষেধ এবং বেস্ট হোল্ডিংসের যোগ্যতা নিয়ে কয়েকটি আইনি প্রশ্ন তুলে সেসব বিষয়ে ব্যাখ্যা চেয়েছে নিয়ন্ত্রক সংস্থা বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন।

আপনার মন্তব্য লিখুন

সংবাদটি শেয়ার করুন

এ বিভাগের আরো সংবাদ
© All rights reserved © 2017 notun-bdsangbad
Design & Developed by Freelancer Zone
themesba-lates1749691102