বুধবার, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০২:০৪ পূর্বাহ্ন

স্কুল ছাত্রীকে ধর্ষণ করলো মসজিদের মোয়াজ্জেন: ৭ মাসের অন্তঃসত্ত্বা স্কুল ছাত্রী!

নতুন বাংলার সংবাদ
  • প্রকাশের সময় : শুক্রবার, ২৫ জুন, ২০২১
  • ২৯১ বার দেখা হয়েছে

মনজু হোসেন, স্টাফ রিপোর্টার।। পঞ্চগড়ের আটোয়ারী উপজেলার ৩নং আলোয়া খোয়া ইউনিয়নের ৭নং ওয়াডের বাবন কুমার মাঝাপাড়া এলাকার মসজিদের মোয়াজ্জেন আবু তাহের (৬৫) নামে এক বৃদ্ধ কৌশলে কিশোরী মেয়েকে সাত মাস ধরে ধর্ষণ করায় সাত মাসের অন্ত:সত্ত্বা হওয়ার অভিযোগ উঠেছে। সে আটোয়ারী উপজেলার ওই এলাকার মসজিদের মোয়াজ্জেন মৃত: দারাজউদ্দীনের ছেলে আবু তাহের।

সরেজমিনে গিয়ে জানা যায় একই এলাকার সানুল হকের স্কুল পড়ুয়া কিশোরী মেয়েকে বিভিন্ন লোভ লালসা প্রলোভন দিয়ে কৌশলে প্রায় সাত মাস ধরে মসজিদের মোয়াজ্জেন আবু তাহের ধর্ষণ করে আসে। এতে করে ওই স্কুল পড়ুয়া কিশোরী মেয়ে সাত মাসের অন্ত:সত্ত্বা হয়ে পড়ে। এদিকে ওই মেয়ের শরীরের গঠন অন্ত:সত্ত্বা দেখা দেয়ায় পরিবার থেকে চাপ দিলে সে মসজিদের মোয়াজ্জেন আবু তাহেরের নাম উল্ল্যেখ করে বলে মা বাবা যখন কাজে বেড় হয় প্রতিবেশী সম্পর্কে নাতনি সেই সুযোগে ভয়ভীতি দেখিয়ে প্রায় সময় লুকিয়ে বাড়িতে এসে জোরপূর্বক আমাকে ধর্ষণ করতো। এমন কি আমি এসব কথা কোথাও জানালে মেরে ফেলার হুমকি দেয় এবং আমার পরিবারের বড় ধরনের ক্ষতি করার কথা বলে। তাই আমি ভয়ে কোথাও জানাতে সাহস পাইনি। ওই এলাকার মসজিদের মোয়াজ্জেন আবু তাহেরের সাথে কথা হলে তিনি সত্য ঘটনা স্বীকার করে বলেন,সাত মাস ধরে প্রায় সময় তার মা বাবা কাজে বের হলে তার বাড়িতে গিয়ে ধর্ষণ করেছি এবং আমার বাড়িতে এনেও তার সাথে প্রায় সময় মেলামেশা করেছি। পরবর্তীতে এই বিষয়টি এলাকায় জানাজানি হলে স্থানীয় লোকজন ওই ওয়াডের ইউপি সদস্য রাজিউর রহমান রাজু ও মহিলা ইউপি সদস্যা নুড়িমা আক্তারকে বিষয়টি জানানো হয়। এ বিষয়কে কেন্দ্র করে বেশ কয়েকবার স্থানীয়ভাবে সালিশ বৈঠক বসলেও কোন সুরাহা হয়নি। এদিকে মেয়ের পরিবার এবং তার মা বাবা জানায় আমরা গরীব মানুষ আর এই গরীব হওয়ার সুযোগে আমার স্কুল পড়ুয়া মেয়েকে ধর্ষণ করেছে। আমার স্কুল পড়ুয়া মেয়ের সর্বনাশকারী মসজিদের মোয়াজ্জেন আবু তাহেরের বিচারের দাবী জানাচ্ছি। স্থানীয় ভাবে বৈঠকে বসা সালিশ কারী ৭ নং ওয়াডের ইউপি সদস্য রাজিউর রহমান রাজু ও মহিলা ইউপি সদস্যা নুড়িমা আক্তারের সাথে মুঠো ফোনে কথা হলে তারা জানান এই এলাকার মসজিদের মোয়াজ্জেন আবু তাহের একই গ্রামের স্কুল পড়ুয়া মেয়েকে সাত মাস ধরে ধর্ষণ করেছে এবং সাত মাসের অন্ত:সত্ত্বা রয়েছে এই ঘটনাটি সত্য। আমরা ওই মেয়ের ভবিষৎ চিন্তা করে মেয়ের নামে ২৮ শতক জমি লিখে দিয়ে ওই মেয়েকে বিয়ে করার পরামর্শ দিয়েছি মসজিদের মোয়াজ্জেনকে।

এ বিষয়ে আটোয়ারী উপজেলার ৩নং আলোয়া খোয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যন প্রদীপ কুমার রায় এর সাথে মুঠো ফোনে কথা হলে তিনি জানান,আমাকে ওই এলাকার মসজিদের মোয়াজ্জেন আবু তাহের স্কুল পড়ুয়া মেয়েকে ধর্ষণ করেছে আপনার মুখে শুনলাম,এ বিষয় কোন কথা আমাকে কেউ বলেনি বা পরিষদে অভিযোগ আসেনি। যদি অভিযোগ আসে আমি ইউনিয়ন পরিষদে সুষ্ঠ বিচার করবো। আর আমার বিচার যদি কেউ না মানে তহলে আইনের আশ্রয় নেয়ার পরামর্শ দিব।

আপনার মন্তব্য লিখুন

সংবাদটি শেয়ার করুন

এ বিভাগের আরো সংবাদ
© All rights reserved © 2017 notun-bdsangbad
Design & Developed by RJ Ranzit
themesba-lates1749691102