মঙ্গলবার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০৭:৩৮ অপরাহ্ন

লালমনিরহাটে স্ত্রী ধারালো দায়ের কোপে স্বামীর লিঙ্গ কর্তন : আটক-স্ত্রী

নতুন বাংলার সংবাদ
  • প্রকাশের সময় : বৃহস্পতিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারী, ২০২১
  • ৪১২ বার দেখা হয়েছে
আটক স্ত্রী খাদিজা বেগম

আসাদুল ইসলাম সবুজ, লালমনিরহাট ॥ লালমনিরহাট সদর উপজেলার গোকুন্ডা ইউনিয়নে পরিকীয়ার অভিযোগ এনে ঘুমন্ত স্বামী রাসেল মিয়াকে (৩২) ধারালো দা দিয়ে কুপিয়ে গুরুতর জখম করেছে স্ত্রী খাদিজা বেগম। এলোপাথাড়ি দায়ের কোপে স্বামীর মুখমন্ডল ও দুই পায়ের উড়–ঁতে জখম এবং লিঙ্গ কেটে যায়।

বৃহস্পতিবার (২৫ ফেব্রুয়ারী) ভোর রাতে ইউনিয়নের গুড়িয়াদহ খালিশা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। বৃহস্পতিবার দুপুরে স্ত্রী খাদিজাকে আটক করেছে থানা পুলিশ। রাসেল ওই গ্রামের অবসরপ্রাপ্ত পুলিশ সদস্য শাহজামান মিয়ার ছেলে।

পুলিশ ও এলাকাবাসী জানিয়েছেন, তিন বছর আগে পাশ^বর্তি মহেন্দ্রনগর ইউনিয়নের সাতপাটকি গ্রামের কৃষক নুর ইসলামের মেয়ে খাদিজার (২৩) সাথে রাসেলের পাবিবারিকভাবে বিয়ে হয়। এ দম্পতিবার ঘরে দুই বছরের একটি কন্যা সন্তান রয়েছে। গত কয়েক মাস থেকে স্বামী রাসেল পরকীয়ায় জড়িয়ে পড়ে। এ নিয়ে প্রায়ই স্বামী- স্ত্রীর মধ্যে ঝগড়া হতো।

এ ব্যাপারে গত বুধবার রাতে উভয় পরিবার বসে আপোষ-মিমাংসাও করেন। কিন্তু ওই রাতের ভোরের দিকে ঘুমন্ত অবস্থায় স্বামী রাসেলকে এলোপাথাড়ি কোপাতে থাকেন স্ত্রী খাদিজা বেগম। এসময় স্বামী রাসেলের আত্মচিৎকারে প্রতিবেশিরা এসে দরজা ভেঙে ঘরে প্রবেশ করে রক্তাক্ত অবস্থায় উদ্ধার করে সদর হাসপাতালে ভর্তি করে। সেখানে অবস্থার অবনতি হলে তাকে রংপুর মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়।

সদর থানার ওসি শাহ আলম বলেন, রোগীর অবস্থা গুরুতর হওয়ায় রাসেলকে রংপুর মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। তার স্ত্রী খাদিজাকে আটক করা হয়েছ। মামলার প্রক্রিয়া চলছে।

আপনার মন্তব্য লিখুন

সংবাদটি শেয়ার করুন

এ বিভাগের আরো সংবাদ
© All rights reserved © 2017 notun-bdsangbad
Design & Developed by RJ Ranzit
themesba-lates1749691102