বৃহস্পতিবার, ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০৭:৫৩ পূর্বাহ্ন

লালমনিরহাটে মসজিদে নামাজ পড়াবস্থায় ছোটভাইয়ের ছোড়ার আঘাতে বড়ভাই মৃত্যুশয্যায়

স্টাফ রিপোর্টার ।।
  • প্রকাশের সময় : বুধবার, ১৪ সেপ্টেম্বর, ২০২২
  • ৩৫৬ বার দেখা হয়েছে
বুধবার (১৪ সেপ্টেম্বর) সকাল সাড়ে ৫টায় সদর উপজেলার গোকুন্ডা ইউনিয়নের মোস্তফী বাসষ্ট্যান্ড এলাকার আল-আজিজিয়া জামে মসজিদে ফজরের নামাজ আদায়ের সময় ছোটভাই আবুল হোসেনের ধারালো ছোড়া আঘাতে বড়ভাই আলহাজ্ব মোঃ আঃ খালেক গুরুত্বর আহত ( ডানে ও বামে ছবি সংগৃহীত )। নতুন বাংলার সংবাদ

লালমনিরহাটে মসজিদের নামাজ পড়াবস্থায় ছোটভাইয়ের ধারালো ছোড়ার আঘাতে বড়ভাই মৃত্যুশয্যায় হাসপাতালের বেডে কাতরাচ্ছে। এ ঘটনায় সদর থানায় ২ জনের বিরুদ্ধে একটি অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে।

বুধবার (১৪ সেপ্টেম্বর) সকাল সাড়ে ৫টায় সদর উপজেলার গোকুন্ডা ইউনিয়নের মোস্তফী বাসষ্ট্যান্ড এলাকার আল-আজিজিয়া জামে মসজিদে ফজরের নামাজ আদায়ের সময় ছোটভাই আবুল হোসেনের ধারালো ছোড়া আঘাতে বড়ভাই আলহাজ্ব মোঃ আঃ খালেক গুরুত্বর আহত হওয়ার ঘটনা ঘটেছে।

অভিযোগে জানা যায়, উপজেলার গোকুন্ডা ইউনিয়নের মোস্তফী বাসষ্ট্যান্ড এলাকার মৃত-হানিফ উদ্দিনের পুত্র আলহাজ্ব মোঃ আঃ খালেকের সাথে তার আপন ছোটভাই মোঃ আবুল হোসেনের দীর্ঘদিন ধরে পারিবারিক বিষয়াদি নিয়া বিরোধ চলে আসছিল। এ নিয়ে আলহাজ্ব মোঃ আঃ খালেককে খুন জখম করার হুমকি প্রদান করা সহ ক্ষতি করার অপচেষ্টায় লিপ্ত ছিলেন ছোটভাই আবুল হোসেন।

এরই ধারাবাহিকতায় (১৪ সেপ্টেম্বর) ভোর সাড়ে ৫টায় সময় আলহাজ্ব মোঃ আঃ খালেকের স্থানীয় মোস্তফী আল আজিজিয়া জামে মসজিদে ফজরের নামাজ আদার করার জন্য সিজদায় যাওয়ার সুযোগে ছোটভাই মোঃ আবুল হোসেন ধারালো ছোড়া দিয়া ঘারে কোপ মারে। ওই সময় আঃ খালেকের ঘার ও পিঠে কাটা রক্তাক্ত জখম সৃষ্টি হয়। একপর্যায়ে নামাজ শেষ হইলে, সকল মুসল্লিগণ ক্ষিপ্ত হইয়া আবুল হোসেনকে আটক করার চেষ্টা করেন। কিন্তু আবুল হোসেনের হাতে থাকা ধারালো ছোড়া দিয়ে সকল মুসল্লিগণ ভয়ভীতি দেখাইয়া মসজিদ থেকে দৌড়ে নিজ বাড়িতে পালিয়ে যান।

পরে রক্তাক্তবস্থায় আলহাজ্ব মোঃ আঃ খালেককে তার বাড়ির লোকজনসহ স্থানীয় লোকজন উদ্ধার করে লালমনিরহাট সদর হাসপাতালের ভর্তি করান। জরুরী বিভাগের রেজিঃ নং-২২৩০০০/৪, তারিখ: ১৪/০৯/২০২২ইং। ওই সময় সদর হাসপাতালের জরুরী বিভাগের কর্তব্যরত চিকিৎসক আঃ খালেককে অবস্থা বেগতি দেখে উন্নত চিকিৎসার জন্য দ্রুত রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার্ড করেন।

এ ঘটনায় আলহাজ্ব মোঃ আঃ খালেকের স্ত্রী মোছাঃ পরিনা বেগম বাদী হয়ে লালমনিরহাট সদর থানায় মোঃ আবুল হোসেন ও তার স্ত্রী মাসুদা বেগমের বিরুদ্ধে একটি অভিযোগ দায়ের করেন।

এ ব্যাপারে লালমনিরহাট সদর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) এরশাদুল আলম বলেন, অভিযোগ পেয়েছি, বিষয়টি তদন্ত পূর্বক অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

আপনার মন্তব্য লিখুন

সংবাদটি শেয়ার করুন

এ বিভাগের আরো সংবাদ
© All rights reserved © 2017 notun-bdsangbad
Design & Developed by RJ Ranzit
themesba-lates1749691102