মঙ্গলবার, ২৯ নভেম্বর ২০২২, ০৬:৫১ পূর্বাহ্ন

ভিক্ষুক বৃদ্ধ দম্পতিকে পিটিয়ে বাড়ি দখল করেছে এক প্রভাবশালীরা

নতুন বাংলার সংবাদ
  • প্রকাশের সময় : শুক্রবার, ১ জানুয়ারী, ২০২১
  • ১৯০ বার দেখা হয়েছে
ছবি: সংগৃহীত

বাংলার সংবাদ ডেস্ক ।। ময়মনসিংহের ত্রিশালে চাঁন মিয়া হত্যাকে কেন্দ্র করে বৃদ্ধ দম্পতিকে পিটিয়ে কুপিয়ে তাদের বাড়ি দখল করেছে স্থানীয় প্রভাবশালীরা। দখলকৃত ১৯ শতাংশ জমিতে চাঁন মিয়া স্মরণে নির্মাণ করা হয়েছে মার্কেট। এখন ভিটে হারা বৃদ্ধ দম্পতি ভিক্ষা জীবন যাপন করছেন।

জানা যায়, ২০১৫ সালের ১০ ডিসেম্বর ত্রিশাল উপজেলার ধানীখোলা ইউনিয়নের মধ্যভাটি পাড়া গ্রামে চাঁন মিয়া হত্যাকে কেন্দ্র করে আতশ আলী ও তার স্ত্রী মগরজানসহ তাদের ছেলে-মেয়েদেরকে পিটিয়ে ও কুপিয়ে বাড়িছাড়া করেন প্রভাবশালী সোহরাব আলী মন্ডলের ছেলে রফিকুল ইসলাম বাবুল। দখলকৃত সেই জমিতে নিহত চাঁন মিয়া স্মরণে মার্কেট নির্মাণ করে ভাড়া দিয়েছেন রফিকুল ইসলাম বাবুল।

এই ঘটনার ৫ বছর পেরিয়ে গেলেও বসতভিটা দখল নিতে পারেননি বৃদ্ধ দম্পতি। তাদের নামে হত্যাসহ দেওয়া হয় আরও তিনটি মামলা।

ভুক্তভোগী বৃদ্ধ দম্পতি আতশ আলী ও মগরজান বেগম বলেন, স্বাধীনতার আগেই থেকেই আমরা এই বাড়িতে বসবাস করছি। এখানে থেকেই ছেলে মেয়েরা বড় হয়েছে। ২০১৫ সালের ১০ ডিসেম্বর গাছের ডাল পড়াকে কেন্দ্র করে বিদ্যুৎ অফিসের লোকজনের সাথে তাদের ঝগড়া হলে চাঁন মিয়া মাঝখানে পড়ে হার্ট অ্যাটাকে মারা যান। চান মিয়া মারা যাওয়ার পর আমাদের নামে হত্যা মামলাসহ তিনটি মামলা দিয়ে বাড়িঘর ভাঙচুর করে উচ্ছেদ করেন রফিকুল ইসলাম বাবুলরা। সেখানে ঘর-বাড়ি ভাঙচুরের পর মার্কেট তৈরি করে ভাড়াও দেয়া হয়েছে।

তবে অভিযুক্ত রফিকুল ইসলাম বাবুলের দাবি, তাদের জায়গাতে পূর্ব পুরুষরা আতশ আলীর পরিবারকে থাকতে দিয়েছিল। এখন তার চাচাত ভাইকে হত্যা করায় উচ্ছেদ করা হয়েছে।

তদন্তকারী কর্মকর্তা গোয়েন্দা পুলিশের উপ পরিদর্শক সোহরাব আলী বলেন, বাড়ির জমি দখলের বিষয়ে একটি মামলা করা হয়েছে। মামলাটি জেলা গোয়েন্দা পুলিশ তদন্ত করছে।

তিনি আরও জানান, বাড়িটি আসামি পক্ষের দখলে আছে। তদন্ত শেষ পর্যায়ে। শিগগিরই প্রতিবেদন জমা দেওয়া হবে।

আপনার মন্তব্য লিখুন

সংবাদটি শেয়ার করুন

এ বিভাগের আরো সংবাদ
© All rights reserved © 2017 notun-bdsangbad
Design & Developed by RJ Ranzit
themesba-lates1749691102