শনিবার, ২৮ মে ২০২২, ০৯:৫৪ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
লালমনিরহাটে বসতভিটা ও চাষাবাদের ৩৩ শতক জমি রক্ষায় নিঃস্ব ফৈমুদ্দিন শুধুই কাঁদছেন! লালমনিরহাটের গোকুন্ডায় যৌতুকের দাবীতে গৃহবধুকে অমানসিক নির্যাতনে অভিযোগ মই দিয়ে ৫ কোটি টাকায় সেতুতে উঠছেন স্থানীয়রা! ইলিয়াস মোল্লা’কেই পুনরায় চেয়ারম্যান হিসেবে চায় লাউকাঠী ইউনিয়নবাসী শিক্ষার্থীদের ধাওয়া খেয়ে ভোঁ-দৌড় দিলেন সুন্দরগঞ্জ উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা! লালমনিরহাটে পানির নিচে কৃষকের স্বপ্নের ধান! হাতীবান্ধায় ন্যাশনাল ব্যাংকের করোনায় ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারের মাঝে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ ভুট্টাক্ষেতে মিলল স্কুলছাত্রীর মরদেহ তিস্তা বাঁচাও ভাঙ্গন ঠেকাও শীর্ষক তিস্তা কনভেনশন কাজীর কান্ড! কাবিননামা নিতে ৩০ হাজার টাকা দাবি

তিস্তা ব্যারেজের গেট খুলে দিলো ভারত : হলুদ সংকেত জারি

নতুন বাংলার সংবাদ
  • প্রকাশের সময় : শনিবার, ৩ জুলাই, ২০২১
  • ১২৩ বার দেখা হয়েছে
ছবি: সংগৃহীত

বাংলার সংবাদ ডেস্ক ।। বাংলাদেশ-ভারত সীমান্তবর্তী নদীগুলোর পানি অস্বাভাবিক হারে বাড়তে থাকায় জারি করা হয়েছে হলুদ সর্তকতা সংকেত। চাপ কমাতে অন্তত ৬০টি জলকপাট খুলে দিয়েছে ভারত।

পশ্চিমবঙ্গ সেচ বিভাগ বলছে, সিকিম, পশ্চিমবঙ্গ ও ভুটানে ভারি বৃষ্টির কারণে গজলডোবা তিস্তা ব্যারেজে পানির পরিমাণ বেড়ে গেছে। এ কারণে খুলে দেয়া হয়েছে ৪৪টি গেইটের সবগুলো। বুধবারও পানি ছাড়ার পরিমাণ ছিলো ১,৪৫০ কিউসেক।

এছাড়া ফারাক্কার ৮টি স্লুইসগেইট খোলার কথা জানিয়েছে প্রশাসন। অতিরিক্ত পানির চাপ বেড়ে যাওয়ায়, ঝাড়খন্ডের তিলপাড়া ব্যারেজের ৫টি গেইট খুলে দেয়া হয়েছে। এছাড়া বিহারের সাথে পশ্চিমবঙ্গের লাগোয়া দামোদর ব্যারেজের ৩টি গেইট খুলে দিয়েছে সেখানকার প্রশাসন।

যেভাবে বৃষ্টি হচ্ছে, তাতে তিস্তার পানি আরো বাড়বে এমন সতর্কতা জারি করা হয়েছে। শঙ্কায় পড়েছেন উপকূলীয় অঞ্চলের মানুষ। তলিয়ে যেতে পারে বাংলাদেশের সীমান্তবর্তী নীচু গ্রামগুলো। এরই মধ্যে পানি ঢুকতে শুরু করেছে বিভিন্ন এলাকায়।

আপনার মন্তব্য লিখুন

সংবাদটি শেয়ার করুন

এ বিভাগের আরো সংবাদ
© All rights reserved © 2017 notun-bdsangbad
Design & Developed by Freelancer Zone
themesba-lates1749691102